June 17, 2024, 8:28 am

রাসিক মেয়র লিটনকে ‘শালীনতা বিবর্জিত’ চিঠি, শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানকে শোকজ

রাসিক মেয়র লিটনকে ‘শালীনতা বিবর্জিত’ চিঠি, শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানকে শোকজ

Spread the love

রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র ও আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটনকে ‘শালীনতা বিবর্জিত’ চিঠি লেখার অভিযোগ উঠেছে রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমানের বিরুদ্ধে। এ জন্য তাকে শোকজ করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, গত ১৮ জুলাই রাজশাহী মো. হাবিবুর রহমানের নামে  মেয়র খায়রুজ্জামান লিটনকে চিঠি পাঠানো হয়। ‘শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানের প্যাডে’ স্বাক্ষর করা ওই চিঠিতে লেখা ছিল, ‘আপনার সঙ্গে আমাকে দেখা করার জন্য গেটে অপেক্ষা করতে হবে। আপনার কাছে সময় চাইতে হবে? বিষয়টি কল্পনা করা আমার জন্য দুরূহ। আপনি জানেন কি আমার শাশুড়ি এমপি। আমার আওয়ামী পরিবারে জন্ম। ভবিষ্যতে আমিও এমপি বা মন্ত্রী হতে পারি। গাজীপুরের ও কাটাখালীর মেয়রদের দিকে তাকান। বর্তমানে তাদের কি অবস্থা?’

চিঠি পাওয়ার পর গত ২৪ আগস্ট শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে বিষয়টি জানান মেয়রে লিটন। এর পরিপ্রেক্ষিতে শিক্ষা মন্ত্রণালয় শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানকে শোকজ করেন। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব মোহাম্মদ আবু নাসের বেগ স্বাক্ষরিত চিঠিতে শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানকে ১০ দিনের মধ্যে সুস্পষ্ট ব্যাখ্যা প্রদান করতে বলা হয়। এতে বলা হয়, ‘গুরুত্বপূর্ণ পদে অধিষ্ঠিত থেকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদার প্রতি উদাসীন এবং ঔদ্ধত্যপূর্ণ এ মন্তব্য একজন দায়িত্বশীল সরকারি কর্মচারী বিধিমালা, ২০১৮ এর পরিপন্থী।’

ইতোমধ্যেই রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানের দপ্তর থেকে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে ব্যাখ্যা দেওয়া হয়েছে। ব্যাখ্যা দিয়ে পাঠানো সে চিঠিতে বলা হয়েছে, শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমানের অনুরূপ (জাল/ স্ক্যান) স্বাক্ষরে একটি আপত্তিকর পত্র রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়রের কাছে পাঠানো হয়। চিঠিতে রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের কোনো স্বারক নম্বর ব্যবহার করা হয়নি। চিঠিটি উপশহর পোস্ট অফিস থেকে পোস্ট করা হয়েছে, যা মেয়রের দপ্তর থেকে বোর্ড চেয়ারম্যান জেনেছেন। রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের সব দাপ্তরিক চিঠি বোর্ড–সংলগ্ন জিপিও-৬০০০ থেকে পোস্ট করা হয়।

এতে আরও বলা হয়, চিঠিতে যে ধরনের প্যাড ও ফরমেট ব্যবহার করা হয়েছে, তা রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের কোনো দাপ্তরিক পত্রে ব্যবহার করা হয় না। মেয়রের কাছে শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান সম্পর্কে বিভ্রান্তি তৈরির জন্য কে বা কারা এই স্মারকবিহীন পত্রটি উপশহর ডাকঘরে পোস্ট করেছে। বিষয়টি নিয়ে রাজশাহী শিক্ষা বোর্ড বিব্রত এবং তা তদন্তের দাবি রাখে। ওই চিঠির সঙ্গে শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানের কোনো সংশ্লিষ্টতা নেই।

এ বিষয়ে রাজশাহী শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান বলেন, ‘ওই চিঠি আমি লিখিনি। কে বা কারা লিখেছে জানি না। তাদের হয়তো কোনো ইন্টারেস্ট আছে, আমার সঙ্গে মেয়র মহোদয়ের সম্পর্ক নষ্ট করার। আমি তো পাগল নই যে একজন সরকারি কর্মকর্তা হয়ে মেয়রকে চিঠি লিখবো। পরে আমি চিঠি লিখে মেয়র মহোদয়কে তার জবাব দিয়েছি।’

রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন এ বিষয়ে বলেন, শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানের প্যাডে লেখা শালীনতা বিবর্জিত চিঠি পেয়ে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে জানানো হয়। এখন বিষয়টি তারা তদন্ত করে ব্যবস্থা নেবেন।


Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category