June 21, 2024, 7:56 am

PW 8

পরিবেশ সংরক্ষণ ও বৃক্ষরোপন কর্মসূচিতে পেন্সিল

Spread the love

প্রকৃতিকে ভালোবাসা এটা মনের গভীর থেকে আসে। এটা হাজার চেষ্টা করে হয় না। প্রকৃতির স্পন্দন তার দেহে, স্নায়ুতন্ত্রে রক্ত প্রবাহের মতো কাজ করে। প্রকৃতি হারিয়ে গেলে গাছপালা যদি না থাকে তাহলে বৈচিত্র্য হারিয়ে যাবে। বৈচিত্র্য এজন্য প্রয়োজন যে, জনসংখ্যা এত বেড়ে চলেছে যে খাদ্য জোগান, ওষুধ, চিকিৎসার ব্যবস্থা এবং অন্যান্য বহু কাজে আমাদের এ বৈচিত্র্য প্রয়োজন।

বৃক্ষরোপনকে বা বনকে সীমিতভাবে নিজের এলাকায় সীমাবদ্ধ না রেখে সেটা সারা দেশে ছড়িয়ে দিতে হবে। এরই মধ্যে আমরা লক্ষ্য করেছি, অনেক জায়গায় মানুষ বৃক্ষরোপণে উদ্যোগী হয়েছেন এবং বৃক্ষায়ন বৃদ্ধি পাচ্ছে। কিন্তু তারা বিক্রয়যোগ্য বিদেশী গাছপালাই বেশি লাগান। দেশী গাছগুলো এই ক্ষেত্রে বাদ পড়ে যাচ্ছে। তাতে জীববৈচিত্র্যের নষ্ট হচ্ছে। শুধু বৃক্ষই নয় প্রকৃতির ভারসাম্য রক্ষার জন্য লতাগুল্মও অত্যন্ত কার্যকরী ভুমিকা পালন করে। আমাদের দেশের বৃহৎ নিম্নাঞ্চল ও জলাভূমি এলাকায় পানিসহিষ্ণু বৃক্ষের অরণ্য গড়ে তোলা সম্ভব। সেদিকে কারও তেমন আগ্রহ নেই।

আমরা সবসময় প্রকৃতি সংরক্ষণের জন্য বড়বড় বুলি ছুড়ি টক শো করি কাজের বেলায় নাই। কিন্তু পেন্সিল ফাউন্ডেশন বুলি ছুড়েন নাই তারা কাজের বাস্তব রুপ দিয়েছেন। Pencil woman’s -8 (PW-8) নামটি তারা দেন নাই আমি দিলাম তাদের কাজ ও কার্যক্রম দেখে। PW-8  হচ্ছে ৮ জন বয়সে তরুনী না হলে কাজে তরুনী মেয়ে যারা হচেছন নাজু খান, জুবাইদা পারভীন লিপি. মাফি খান, মারজানা সাবিহা শুচি, রোজি খন্দকার রোজ, মিতা রহমান, আনোয়ারা খাতুন ও ববি লায়লা। তারা মানুষকে বৃক্ষরোপণে উদ্বুদ্ধ করছে এবং তাতে তারা সাড়াও দিয়েছে রাজশাহী শহরের বিভিন্ন স্কুল কলেজের শিক্ষকবৃন্দ । বৃক্ষরোপণের এই মহৎ উদ্যগকে সহয়তা দিতে এগিয়ে এসেছেন রাজশাহীর জেলা প্রশাসক মোঃ হামিদুল হক গত ৪ জুলাই রাজশাহী রিভার ভিউ কালেক্টরেট স্কুলে এ বৃক্ষরোপণ কর্মসূচীতে যোগদিয়ে তাদের কার্যক্রমকে আরও গতিশীল করে গেলেন।

bdsocialnews.com

জেলা প্রশাসক আরও বলেন সাহিত্যচর্চার পাশাপাশি পেন্সিলের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচির উদ্যোগের প্রশংসা করে স্কুলের শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার পাশাপাশি ডেঙ্গু প্রতিরোধে নিজ বাড়ির আঙ্গিনাসহ আশপাশ পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন রাখা, পিতা-মাতার খোঁজ-খবর রাখা এবং শিক্ষকদের উপদেশ মেনে চলার পরামর্শ দেন। এবং জেলা প্রশাসক মোঃ হামিদুল হক পেন্সিলের সদস্য হয়ে পেন্সিলর হয়ে যান। পেন্সিল হলো একটি লেখক, সাহিত্যিক, শিল্পিদের অনলাইন ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান। পেন্সিলের প্রত্যেকটি সদস্যকে পেন্সিলর বলে।

গত ২৮ জুলাই ২০১৯ পেন্সিল ফাউন্ডেশন রাজশাহী শহরে অবস্থিত টিটি কলেজে ৬০ টি বিভিন্ন রকম ঔষধি ও ফলজ গাছ আজ লাগিয়ে বৃক্ষরোপন কর্মসূচীর যাত্রা শুরু করেছিল। এবং তাদের এই কর্মসূচী চলতে থাকবে। তাই আসুন আমারা পেন্সিলের শ্লোগান এর সঙ্গে বলি-

গাছ বাঁচলে বাঁচবে প্রান চলুন রাকি অবদান


Spread the love

7 responses to “পরিবেশ সংরক্ষণ ও বৃক্ষরোপন কর্মসূচিতে পেন্সিল”

  1. sophia viagra

    sophia viagra

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category